19 Jun 2021, 6:07 AM (GMT)

Coronavirus Stats

29,853,870 Total Cases
385,815 Death Cases
28,725,030 Recovered Cases

কাকদ্বীপ

  • ৩৬ ব্যারেল বেআইনি ডিজেল ও কেরোসিন তেল উদ্ধার, গ্রেপ্তার ১

    বিশ্ব সমাচার, কাকদ্বীপ : দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার সুন্দরবন পুলিশ জেলার স্পেশাল অপারেশন গ্রুপ ও হারডউ পয়েন্ট কোস্টাল থানার যৌথ উদ্যোগে একটি বেআইনী জ্বালানী তেলের গুদামে হানা দিয়ে প্রচুর পরিমানের ডিজেল ও কেরোসিন তেল বাজেয়াপ্ত করেছে পুলিশ।

    শনিবার বিকেলে কাকদ্বীপের অক্ষয়নগর এলাকার সামন্তরচকের মহাদেব রানার গুদামে হানা দেয় পুলিশ। ওই গুদাম থেকে ৩৬ ব্যারেল কেরোসিন তেল ও ডিজেল উদ্ধার করা হয়েছে। যার আনুমানিক বাজার মূল্য প্রায় চার লক্ষ পঞ্চান্ন হাজার টাকা।

    এই ঘটনায় খোকন রানা নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ধৃতকে রবিবার কাকদ্বীপ মহকুমা আদালতে তোলা হলে, বিচারপতি তাকে ১৪ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন। পুলিশের প্রাথমিক অনুমান, এই বেআইনী গুদাম থেকে ডিজেলের সঙ্গে কেরোসিন তেল মিশিয়ে বাজারে বিক্রি করা হত।

  • নামখানায় যুবতি ছবির সঙ্গে নগ্ন ছবি মিশিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়, গ্রেপ্তার ১

    বিশ্ব সমাচার ওয়েবডেস্ক,নামখানা: বিয়েতে রাজি না হওয়ায়, এক যুবতীর ছবির সঙ্গে নগ্ন ছবি মিশিয়ে ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠল এক যুবকের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে, দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার নামখানার চন্দন পিড়ি এলাকায়। অভিযুক্ত যুবক রজনী কান্ত পাত্র ওরফে বাপন নামখানার হরিপুর এলাকার বাসিন্দা। পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, চন্দন পিড়ি এলাকার এক যুবতীর পরিবারের সাথে দীর্ঘদিন ধরে ওই যুবকের সম্পর্ক ছিল। ওই যুবতীরা ৪ বোন। মেজো বোনকে বিয়ে করার জন্য ওই যুবক প্রস্তাব দিয়ে ছিল। কিন্তু ১ মাস আগে ওই পরিবারের মেজো মেয়ের বিয়ে হয়ে যায়। মেজ মেয়েকে বিয়ে করতে না পারার কারণে, তার ছবির সাথে নোংরা ছবি মিশিয়ে, ওই যুবক ফেসবুকে ছড়িয়ে দেয় বলে অভিযোগ। যুবতীর পরিবারের অভিযোগ, ওই যুবককে এই ব্যাপারে বারবার বারণ করা হয়েছিল। তবে ওই যুবক সেই কথায় কান না দিয়ে, ফোনে হুমকি দিত বলে অভিযোগ। এরপর যুবতীর পরিবারের পক্ষ থেকে নামখানা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে ওই যুবককে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে। এবিষয়ে সুন্দরবন পুলিশ জেলার পুলিশ সুপার ভাস্কর মুখার্জি জানান, এই ঘটনায় একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পুরো ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

     

  • সাগর, কাকদ্বীপে যাতায়াতের ভেসেল সরানো হল নিরাপদ আশ্রয়ে

    বিশ্ব সমাচারের ওয়েবডেস্কঃ আমফান থেকে শিক্ষা নিয়ে এবার সতর্ক পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগমের আধিকারিকরা। দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার গঙ্গাসাগরের সাধারণ মানুষের যাতায়াতের একমাত্র পথ হল কচুবেড়িয়া থেকে লট নম্বর এইট পর্যন্ত ভেসেল পরিষেবা। ওই ভেসেল পরিষেবার মাধ্যমেই সাগরের মানুষ যাতায়াত করে।

    যশের প্রভাবে যাতে ক্ষয়ক্ষতির না হয় তার জন্য পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগমের পক্ষ থেকে ভেসেলগুলিকে নিরাপদ আশ্রয় নিয়ে যাওয়া হয়েছে।পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগমের উদ্যোগে মোট ৬ খানা ভেসেল চালানো হয় মুড়িগঙ্গা নদীর উপর দিয়ে সাগরে যাওয়ার জন্য। গত আমফানের ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল কয়েকটি ভেসেল ও ট্রলার। তাই প্রশাসনের কাছ থেকে ঘূর্ণিঝড় যশের খবর পেয়ে ভেসেলগুলিকে কচুবেড়িয়া ভেসেল ঘাট থেকে নিয়ে মুড়িগঙ্গার পাশে অবস্থিত শিকারপুরের খালে নিরাপদ আশ্রয় নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

    এছাড়াও লট নম্বর এইট থেকে মুড়িগঙ্গা নদীর উপর দিয়ে কচুবেড়িয়ায় গাড়ি পারাপারের জন্য পশ্চিমবঙ্গ পরিবহণ নিগমের উদ্যোগে দুটো বার্জ চালানো হয়। ঘূর্ণিঝড় যশের ফলে ওই দুটি বার্জ যাতে ক্ষতিগ্রস্ত না হয় তার জন্য বার্জ দুটিকে কাকদ্বীপের হারবারের পাশে অবস্থিত ময়নাপাড়ার খালে নিরাপদ আশ্রয় নিয়ে যাওয়া হয়েছে৷

  • কাকদ্বীপ থেকে জেলায় শুরু হল দুয়ারে রেশন দেওয়ার কাজ

    বিশ্ব সমাচার, কাকদ্বীপ : পাইলট প্রজেক্ট হিসেবে দুয়ারে রেশন চালু করার কথা ঘোষণা করেছিল রাজ্য সরকার। আপাতত প্রতি জেলায় একটি করে এলাকায় এই পরিষেবা পরীক্ষামূলক ভাবে শুরু হবে। সেই মত দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার কাকদ্বীপের একটি গ্রাম পঞ্চায়েতকে বেছে নেওয়া হয়েছে। আজ, শুক্রবার এই পরিষেবা দেওয়া হবে।জেলা সূত্রে জানা গিয়েছে, বিবেকানন্দ গ্রাম পঞ্চায়েতের সামন্তেরচক গ্রামে এই দুয়ারে রেশন কার্যকর করা হবে। এই এলাকার রেশন ডিলার মাধাই চন্দ্র ভূঁইঞার অধীনে ১৫০ থেকে ২০০ জন উপভক্তা আছেন। সকাল ১০টা থেকে বাড়ি বাড়ি ঘুরে রেশনের সামগ্রী বিতরণ করা হবে। জেলার এক আধিকারিক বলেন, করোনা সংক্রমণ কাকদ্বীপ মহকুমায় কিছুটা কম। তাই এই জায়গা বেছে নেওয়া হয়েছে। একজন ডিলারের অধীনে কম উপভক্তা আছে, এমন জায়গাকে মাথায় রেখেই এই গ্রাম পঞ্চায়েতকে ঠিক করা হয়েছে।

  • কাকদ্বীপের শ্মশানে মৃতদেহ দাহে বাধা স্থানীয়দের, সৎকারের ব্যবস্থা পুলিশের

    বিশ্ব সমাচার, কাকদ্বীপ: শ্মশানে মৃতদেহ সৎকারে বাধা দিলেন গ্রামবাসীরা। ঘটনাটি ঘটেছে কাকদ্বীপ থানার অন্তর্গত নারায়ণপুর অঞ্চলের প্রথমঘেরী এলাকায়।রবিবার দুপুর ১২টা ৩০ মিনিট নাগাদ নারায়ণপুর অঞ্চলের দ্বিতীয়ঘেরীর বাসিন্দা লক্ষ্মী দলপতির মৃতদেহ প্রথমঘেরী শ্মশানে দাহ করতে নিয়ে যাওয়া হলে করোনা সন্দেহে গ্রামবাসীরা বাধা দেয়।

    প্রায় এক ঘণ্টা মৃতদেহ পড়ে থাকার পর কাকদ্বীপ থানার পুলিশ এসে মৃতদেহ সৎকারের ব্যবস্থা করে। স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, সোমবার ভোর ৫টার সময় দ্বিতীয়ঘেরীর বাসিন্দা লক্ষ্মী দলপতি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান। বয়স হয়েছিল ৫৯ বছর। মৃতার স্বামীর নাম মদন দলপতি।

  • কাকদ্বীপে চালু হল অক্সিজেন পার্লার, ঔষধও বিনামূল্যে

    বিশ্ব সমাচার, কাকদ্বীপ : দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার কাকদ্বীপে চালু হল অক্সিজেন পার্লার। মুক্তি কমিউনিটির উদ্যোগে ও কাকদ্বীপ সস্তা সুন্দরের সহযোগিতায় শুক্রবার এই পার্লারের উদ্বোধন করা হয়।

    প্রাথমিকভাবে ২ শয্যা বিশিষ্ট এই অক্সিজেন পার্লারের উদ্বোধন করা হয়েছে। এ বিষয়ে মুক্তি কমিউনিটির সদস্য শুভদীপ দেবতা জানান, “সারা দেশ জুড়ে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। এক্ষেত্রে পিছিয়ে নেই পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যও। পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য জুড়েও বাড়ছে ক্রমশ করোনা আক্রান্তের সংখ্যা।

    এই পরিস্থিতিতে রাজ্যে-রাজ্যে প্রাণদায়ী অক্সিজেনের সংকট চরম আকার নিয়েছে। এমনকি সরকারি হাসপাতাল গুলিতেও অক্সিজেনের সংকট রয়েছে। এই অক্সিজেনের সংকটময় পরিস্থিতিতে ২ শয্যা বিশিষ্ট অক্সিজেন পার্লারের উদ্বোধন করা হয়েছে।” তিনি আরও বলেন, “এই পার্লারে ভর্তি হওয়া করোনা রোগীদের বিনামূল্যে ঔষধ দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে।

     

  • ছবি ভাইরাল করার ভয় দেখিয়ে লাগাতার ধর্ষণের অভিযোগ, কাকদ্বীপের যুবক জেল হেফাজতে

    নিজস্ব সংবাদদাতা, কাকদ্বীপ: অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে এক মহিলাকে লাগাতার ধর্ষণ এবং মোটা টাকা আত্মসাৎ করার অভিযোগ উঠল এক যুবকের বিরুদ্ধে। মহিলার অভিযোগের ভিত্তিতে শুক্রবার রাতে অভিযুক্ত বছর বত্রিশের অসিত দিন্দাকে গ্রেপ্তার করেছে নামখানা থানার পুলিশ।

    ধৃত যুবক নামখানার শিবরামপুর এলাকার বাসিন্দা। ধৃতের বিরুদ্ধে ধর্ষণ, প্রতারণা, হুমকি, আইটি-অ্যাক্ট সহ একাধিক ধারায় মামলা রুজু করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে ধৃতকে কাকদ্বীপ মহকুমা আদালতে তোলা হলে ১৪ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন বিচারক।পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বছর দুয়েক আগে কাকদ্বীপের বুধাখালি এলাকার বাসিন্দা বছর চল্লিশের ওই নির্যাতিতা মহিলার সঙ্গে নামখানার বাসিন্দা অসিত দিন্দার আলাপ হয়।

    স্থানীয় একটি স্কুলে কাজ করেন নির্যাতিতা। প্রত্যেক দিন স্কুলে যাওয়ার পথে ওই যুবকের সঙ্গে দেখা হত। ধীরে ধীরে দু’জনের মধ্যে আলাপ জমে ওঠে। অভিযোগ, সেই সুযোগে অসিত গোপনে মহিলার স্নানের ভিডিও তোলে নিজের মোবাইলে। এরপর থেকে সেই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল করে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে লাগাতার ধর্ষণ চালিয়ে যায় ওই যুবক।

    এমনকী ৭০ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয় ওই যুবক। নির্যাতিতা মহিলা বারংবার ছবি ডিলিট করার জন্য কাতর আবেদন করেও কোনও লাভ হয়নি বলে অভিযোগ।

  • কাকদ্বীপে লকডাউন, বন্ধ থাকবে সব দোকান, সতর্ক ব্যবসায়ী সমিতি ও প্রশাসন

    রাজা দাস, কাকদ্বীপ : রাজ্যজুড়ে ক্রমশ বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। একই সঙ্গে মফস্বল এলাকায় গুলিতেও করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন এলাকাবাসী। এই পরিস্থিতিতে আগেভাগে সচেতন হতে লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিল কাকদ্বীপ বাজার ব্যবসায়ী সমিতি।

    আগামী এক সপ্তাহের জন্য লকডাউন ঘোষণা করা হল কাকদ্বীপ বাজার ব্যবসায়ী সমিতির পক্ষ থেকে। এ বিষয়ে কাকদ্বীপ বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি সুব্রত ভান্ডারী জানান, “কাকদ্বীপ এলাকা জুড়ে করোনার প্রাদুর্ভাব বাড়ছে। ইতিমধ্যেই কাকদ্বীপ এলাকার বেশ কয়েকজন ব্যবসায়ীর করোনায় মৃত্যু হয়েছে।

    এছাড়াও বেশ কয়েকজন ব্যবসায়ীর পরিবারের লোকজনও করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।এই পরিস্থিতিতে করোনার গ্রাফ কমাতে টানা এক সপ্তাহ কাকদ্বীপ বাজার লকডাউনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আগামী সোমবার অর্থাৎ ১৭ মে থেকে ২৫ মে পর্যন্ত কাকদ্বীপ বাজার সম্পূর্ণ বন্ধ থাকবে।

    ” তিনি আরও বলেন, “লকডাউনের দিনগুলিতে সকাল ৯টা পর্যন্ত কেবলমাত্র মাছ, মাংস ও সবজির দোকান খোলা থাকবে।” তবে মুদিখানা দোকানও লকডাউনের দিনগুলিতে সম্পূর্ণ বন্ধ থাকবে বলে তিনি জানান।

  • সুন্দরবনেও কমছে ভূগর্ভস্থ জলের স্তর, এলাকাবাসীকে সতর্ক করল পঞ্চায়েত

    রাজা দাস, কাকদ্বীপ : একুশ শতকের সব থেকে বড় চ্যালেঞ্জ হল জল সঙ্কট। কারণ নীতি আয়োগের রিপোর্ট বলছে ২০৩০ সালের মধ্যে জল হারা হতে চলেছে দেশের ৬০ শতাংশ এলাকা, যার মধ্যে রয়েছে পশ্চিমবঙ্গের সুন্দরবন এলাকাও। ওই রিপোর্ট অনুযায়ী ভূগর্ভস্থ জল ফুরিয়ে যাওয়ার কারণে মোট জনসংখ্যার  অন্ততঃ ৪০ শতাংশ মানুষকে পানীয় জলের অভাবে ভুগতে হবে আগামী এক বছরের মধ্যে। আবার ন্যাশনাল ওয়াটার একাডেমির তথ্য অনুযায়ী আগামী দিনে পানীয় জলের সমস্যা মেটাতে ডিস্যালাইনেশান (নদী বা সমুদ্রের লবণাক্ত জলকে পানীয় জলের উপযোগী করে তোলা) -এর মতো খরচ সাপেক্ষ উপায় অবলম্বন করতে হবে জলের ন্যূনতম যোগান অক্ষুণ্ণ রাখার জন্য। তাছাড়া ভূগর্ভস্থ জলের পরিমাণ কমে যাওয়ার জন্য পানীয় জলে বেড়ে যাবে আর্সেনিক, লোহা প্রভৃতি ভারী ধাতুর পরিমাণও। এই তথ্যগুলো যে পুরোপুরি সঠিক, তা বোঝা যাচ্ছে এখনই। কারণ গরমকাল পড়তেই পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন এলাকায় দেখা দিয়েছে পানীয় জলের সংকট। নলকূপ থাকলেও তা থেকে পড়ছে না এক ফোঁটা জল। আর এই সংকট মেটাতে ইতিমধ্যেই নানান পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে রাজ্য সরকার। রাজ্যের মালভূমি এলাকা গুলিতে সচরাচর জলের সংকট দেখা গেলেও, নদী সংলগ্ন উপকূলীয় অঞ্চল গুলিতে অতীতে কোনো দিন সেভাবে পানীয় জলের সংকট দেখা যায়নি। কিন্তু বর্তমান পরিস্থিতিতে নদী সংলগ্ন উপকূলীয় অঞ্চল সুন্দরবন এলাকা জুড়েও বাড়ছে পানীয় জলের সংকট। ভূতত্ত্ববিদদের মতে, ভূগর্ভস্থ জলের স্তর ক্রমশ কমে যাওয়ার কারণে সুন্দরবনের বিভিন্ন এলাকায় পানীয় জলের সংকট বাড়ছে। ইতিমধ্যেই সুন্দরবন অঞ্চলের বিভিন্ন এলাকায় পানীয় জলের নলকূপ থেকে জল পড়ছে না। এই পরিস্থিতিতে পানীয় জলের সরবরাহ ঠিক রাখতে, আগে থেকেই অভিনব উদ্যোগ গ্রহণ করল দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার কাকদ্বীপের প্রতাপাদিত্যনগর গ্রাম পঞ্চায়েত। এই পঞ্চায়েত এলাকায় সর্বসাধারণের ব্যবহারের জন্য মোট ৩১৫টি পানীয় জলের নলকূপ রয়েছে। দেওয়াল লিখন ও প্রচারের পাশাপাশি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকাবাসীকে সচেতন করার জন্য এই নলকূপ গুলির পাশে লাগিয়ে দিল একটি করে নোটিশ বোর্ড। এ বিষয়ে প্রতাপাদিত্যনগর গ্রাম পঞ্চায়েতের উপপ্রধান দেবব্রত মাইতি জানান, ভূগর্ভস্থ জলের স্তর দ্রুত নেমে যাওয়ার কারণে পানীয় জলের নলকূপ গুলি অকেজো হয়ে পড়ছে। গত পাঁচ-সাত বছরের মধ্যেই গ্রাউন্ড ওয়াটার লেভেল ১৫-২০ ফুট থেকে ৩৫-৪০ফুট নীচে চলে গেছে। তাই নলকূপের জল, যাতে কেউ বাসন মাজা, কাপড় কাচার মতো অন্য কোন কাজে ব্যবহার না করে, তার জন্য নোটিশ বোর্ড লাগিয়ে প্রত্যেককে সচেতন করা হয়েছে।  তিনি আরও বলেন, এলাকাবাসীর পানীয় জলের সমস্যা যাতে না হয়, তার জন্য পঞ্চায়েতের পক্ষ থেকে নানান ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। এছাড়াও পিএইচ এর সহযোগিতায় বাড়িতে বাড়িতে নল বাহিত জল পৌঁছে দেওয়ার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। প্রতাপাদিত্যনগর গ্রাম পঞ্চায়েতের ২১টি সংসদের মধ্যে ১৩টি সংসদে এই বাড়ি বাড়ি নল বাহিত জল পৌঁছে দেওয়ার কাজ চলছে বলে দেবব্রত বাবু জানান।

  • কাকদ্বীপে পুলিশ অভিযান চালিয়ে বন্ধ করল দোকান

    বিশ্ব সমাচার, কাকদ্বীপ : বুধবার শপথ গ্রহণের পরই রাজ্যের কোভিড পরিস্থিতির মোকাবিলায় তৎপর হলেন মুখ্যমন্ত্রী। শপথগ্রহণের পরই তিনি জানিয়ে দিয়েছিলেন, আপাতত করোনা মোকাবিলায় সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেওয়া হবে। সে কথা মাথায় রেখেই এদিন একাধিক নতুন নির্দেশিকা জারি করল নবান্ন।

    সেই নির্দেশে বাজার খোলার সময়সূচি পরিবর্তন করে জানানো হয়েছে, সকাল ৭টা থেকে বেলা ১০টা, এবং বিকেল ৫টা থেকে সন্ধে ৭টা পর্যন্ত বাজার খোলা থাকবে।তবে বউবাজারের সোনার দোকান খোলা রাখার সময়ে ছাড় দেওয়া হয়েছে। সোনার দোকান দুপুর ১২টা থেকে ৩ পর্যন্ত খোলা থাকবে। অন্যদিকে ব্যাংক খোলা থাকবে সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টো পর্যন্ত।

    তবে এই নির্দেশিকা জারি করা হলেও, বহু এলাকাতে বাজার সকাল ১০টার পরেও খোলা থাকছে। মানা হচ্ছে না সরকারি নির্দেশ। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার পরেও খোলা থাকতে দেখা গেল কাকদ্বীপ বাজারের বহু দোকান। শেষ পর্যন্ত দোকান বন্ধ করতে রাস্তায় নামতে হলো পুলিশ প্রশাসনকে।

    বাজারে বেরিয়ে প্রতিটি দোকান বন্ধ করার জন্য নির্দেশ দেন কাকদ্বীপ থানার পুলিশ আধিকারিকরা। একইসঙ্গে এদিন মাইকিং করে কাকদ্বীপ বাজারের ব্যবসায়ীদের ও সাধারণ মানুষকে করোনার বিষয়েও সচেতন করা হয়।

    এবিষয়ে কাকদ্বীপ বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি সুব্রত ভান্ডারী জানান, “রাজ্য সরকারের নির্দেশ মেনে সব দোকান খোলা ও বন্ধ করা হবে।

    কাকদ্বীপ বাজার ব্যবসায়ী সমিতির পক্ষ থেকেও ব্যবসায়ীদের এই বার্তা দেওয়া হয়েছে।” এদিন তিনি কাকদ্বীপের সকল ব্যবসায়ীকে, রাজ্য সরকারের নির্দেশকে মেনে চলারও অনুরোধ করেন।

Back to top button