বকেয়া ডিএ-র দাবিতে পথে নামলেন সরকারী কর্মী ও শিক্ষকেরা

স্টাফ রিপোর্টার : হাইকোর্টের তরফে ডিএ দিতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারকে নির্দেশ দেওয়ার পরে অতিক্রান্ত ৩ মাস। তারপরেও সরকারের কাছ থেকে কোনও উত্তর মেলেনি। সেই পরিস্থিতিতে রাজ্যের পুজো উদ্যোক্তাদের প্রায় ২৫৮ কোটি টাকার অনুদান দেওয়া নিয়ে মামলা হয়েছে। সেখানে ডিএ-র বিষয়টিও জুড়ে দিয়েছেন এক আবেদনকারী।

সেই পরিস্থিতিতে শনিবার কলকাতার রাজপথে নামলেন সরকারি কর্মীরা।এদিন ডিএ-র দাবিতে যৌথ কর্মসূচি ছিল বিভিন্নি সংগঠনের। সেই তালিকায় বিভিন্ন বিভাগের সরকারি কর্মীরা ছাড়াও ছিলেন শিক্ষক-শিক্ষা কর্মী এণন কী নার্স রাও। শনিবার ডিএ-র দাবিতে হওয়া মিছিলে ছিল প্রচুর মানুষের ভিড়।

এদিন ২৭ টি সংগঠন একসঙ্গে মিছিল করে।মিছিল সুবোধ মল্লিক স্কোয়ার থেকে শুরু গয়ে যায় ধর্মতলা পর্যন্ত।মিছিল থেকে স্বচ্ছভাবে সরকারি নিয়োগের দাবি তোলা হয়েছে।সরকারি কর্মীদের অভিযোগ, সরকার ইচ্ছা করে তাঁদের ডিএ থেকে বঞ্চিত করেছে।পুজোর জন্য অনুদান বাড়ানো যায়, ৬০ ছাজার টাকা করে দেওয়া যায়, কিন্তু কোনওভাবেই ডিএ দেওয়া যায় না।

দিনের পর দিন সরকারি পদও পূরণ হয় না।সরকারি কর্মীরা জানিয়েছেন, সব সরকারি শূন্যপদ পূরণ করতে হবে। আর ৩১ শতাংশ ডিএ দ্রুত মেটাতে হবে।ডিএ-র দাবি ছাড়াও, তাঁদের দাবির মধ্যে রয়েছে স্বচ্ছ্বভাবে নিয়োগের দাবিও।

ডিএ-র দাবিতে ইতিমধ্যেই বৃহত্তর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়েছে রাজ্য সরকারি কর্মীদের সংগঠন কো-অর্ডিনেশন কমিতির তরফে। মঙ্গলবার তাঁরা বেলা ১১ টা থেকে দেড়টা পর্যন্ত কর্মবিরতি পালন করা হবে বলে তাঁরা জানিয়েছেন।

Related Articles

Back to top button
error: Content is protected !!