পার্থের বিধায়ক অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা নেওয়া বন্ধ করার সিদ্ধান্ত তৃণমূলের

স্টাফ রিপোর্টার : দল থেকে সাসপেন্ড হওয়া বিধায়ক পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের অ্যাকাউন্ট থেকে এ বার দলীয় তহবিলে চাঁদা নেওয়া বন্ধ করতে চলেছে তৃণমূল। তৃণমূল পরিষদীয় দল সূত্রের খবর, ২০০১ সালে তৃণমূলের প্রতীকে প্রথম বার বেহালা পশ্চিমের বিধায়ক হন পার্থ। সেই সময় থেকে প্রতি মাসে নিজের বিধায়কের বেতন থেকে দলীয় তহবিলে এক হাজার টাকা করে দেওয়া শুরু করেন তিনি।

তৃণমূল পরিষদীয় দল তৈরি হওয়ার পর থেকেই সব বিধায়কদের থেকে প্রতি মাসে এক হাজার টাকা করে নেওয়ার রীতি চালু হয়। ২০২১ সালে তৃতীয় বার রাজ্যে ক্ষমতা দখলের পর বিধায়কদের পার্টি তহবিলে চাঁদার পরিমাণ বাড়িয়ে দু’হাজার টাকা করা হয়েছে। সেই মতো সব তৃণমূল বিধায়কের মতো পার্থের অ্যাকাউন্ট থেকেও দু’হাজার টাকা করে চাঁদা নেওয়া হয়।

সম্প্রতি তৃণমূলের পরিষদীয় দল সিদ্ধান্ত নিয়েছে সাসপেন্ড হওয়া পার্থের কাছ থেকে কোনওরকম চাঁদা নেওয়া হবে না। জেল থেকে ছাড়া পাওয়ার পর নিজেকে নিষ্কলঙ্ক প্রমাণ করতে পারলে তবেই তাঁকে দলে ফেরার সুযোগ দেওয়া হতে পারে। দলে ফিরতে পারলে তবেই তাঁর থেকে চাঁদা নেওয়া শুরু হবে বলে তৃণমূল সূত্রে খবর।

Related Articles

Back to top button
error: Content is protected !!