কাল আদালতে অনুব্রতকে পেশ, তার আগে বিচারকে হুমকি

স্টাফ রিপোর্টার : অনুব্রত মণ্ডলকে জামিন না দিলে পরিবারের সদস্যদের মাদক মামলায় ফাঁসিয়ে দেওয়া হবে৷ এমনই হুমকি চিঠি পেলেন আসানসোলে সিবিআই-এর বিশেষ আদালতের বিচারক রাজেশ চক্রবর্তী৷জানা গিয়েছে, চিঠিতে লেখা রয়েছে, ‘অনুব্রত মণ্ডলকে জামিনে ছাড়তে হবে দ্রুত।

নইলে পরিবারকে মাদক মামলায় ফাঁসিয়ে দেওয়া হবে।’ গত ২০ অগাস্ট বিচারক এই চিঠি পেয়েছেন বলে খবর৷ ২২ অগস্ট বিষয়টি জেলা জজকে জানান বিচারক রাজেশ চক্রবর্তী। জানানো হয়েছে কলকাতা হাইকোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেলকেও।বিচারককে এই হুমকি চিঠি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে বাপ্পা চট্টোপাধ্যায় নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে৷ তিনি আবার পূর্ব বর্ধমানের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেটের কোর্টের হেড ক্লার্ক৷

পাশাপাশি তিনি রাজ্য সরকারি কর্মচারী সংগঠনের বর্ধমান ইউনিটের সহকারী সম্পাদক৷ যদিও অভিযুক্তের দাবি, এই চিঠির বিষয়ে তিনি কিছুই জানেন না৷কয়লা ও গরুপাচার মামলার শুনানি চলছে আসানসোলের সিবিআই আদালতে। দুই মামলার একাধিক প্রভাবশালী অভিযুক্তকে ওই আদালতে হাজির করা হচ্ছে। গরুপাচার মামলায় সিবিআইয়ের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছেন অনুব্রতও।

তাঁকেও আসানসোলের সিবিআই আদালতের বিচারক রাজেশ চক্রবর্তীর এজলাসে হাজির করছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। ইতিমধ্যে জামিনের আবেদন খারিজ হয়েছে সিবিআই আদালতে। ধোপে টেকেনি অসুস্থতার তত্ত্ব। ২৪ আগস্ট পর্যন্ত সিবিআই হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছিলেন বিচারক।

কাল ফের অনুব্রত মণ্ডলকে আসানসোলের সিবিআই আদালতে পেশ করা হবে।এর মাঝেই হুমকি চিঠি পেলেন তিনি। যা নিয়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে৷এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে সিপিএমের রাজ্যসভার সাংসদ তথা বর্ষীয়ান আইনজীবী বিকাশরঞ্জন ভট্টাচার্য বলেন, “এটা একটা ভয়ংকর প্রবণতা।

নিম্ন আদালতের একাধিক বিচারককে এভাবে হুমকি দেওয়া হয়। ২০১১ সালের পর থেকে এই প্রবণতা আরও বেড়েছে। এই বিষয়টি এখনই আটকানো না গেলে সাধারণ মানুষের শেষ ভরসাস্থলও নষ্ট হয়ে যাবে।” একই সুর আইনজীবীদের গলাতেও।

Related Articles

Back to top button
error: Content is protected !!