ফ্রেজারগঞ্জে জোয়ারের দাপটে নদীর বাঁধ ধসে গেল ৫০০ মিটার

অমিত মণ্ডল, ফ্রেজারগঞ্জ: পূর্ণিমার কোটালে নদীর জোয়ারের দাপটে নদীর বাঁধ ধসে গেল ৫০০ মিটার। ঘটনাটি ঘটেছে নামখানা ব্লকের ফ্রেজারগঞ্জ পঞ্চায়েতের বিজয়বাটি গ্রামের কালীস্থানে।স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, শনিবার রাতে যখন নদীতে জোয়ারের জল বাড়ছিল, সেই সময় আচমকায নদীবাঁধের কিছুটা অংশ ধসে পড়ে।

এই প্রসঙ্গে ফেজারগঞ্জ পঞ্চায়েতের প্রধান গৌতম প্রামাণিক বলেন, আমরা ওই জায়গাটা দেখে এসেছি। এক-দু দিনের মধ্যে আমরা কাজ শুরু করব।স্থানীয় বাসিন্দারা বলেন, পূর্ণিমার দিন থেকে নদীতে জোয়ারের জল বাড়ছে। ওই রাস্তাটা কংক্রিটের তৈরি। এমনকী পাইলিংও দেওয়া ছিল নদীর ধারে। কিন্তু নদীর জোয়ারের জলের তোড়ে সেই মাটি সরে গিয়ে শনিবার রাতে ধস নেমেছে রাস্তাতে।

অন্যদিকে, ফেজারগঞ্জ অঞ্চল তৃণমূল কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক প্রসেনজিৎ জানা বলেন, প্রবল জোয়ারে দাপটে হঠাৎ করে বাঁধ ভেঙে গিয়েছে। সেচ বিভাগ থেকে প্রথমে পাইলিং দেওয়া হয়েছিল। পরে এটা প্রাকৃতিক দুর্যোগের ফলে নষ্ট হয়ে যায়। পরে আবার ফ্রেজারগঞ্জ পঞ্চায়েতের উদ্যোগে নদীর ধারে পাইলিং দেওয়া হয়।

আগে দেখে এসেছি এবং আজ ইঞ্জিনিয়ার সাহেবকে নিয়ে যাচ্ছি। আমাদের পঞ্চায়েতের পক্ষ থেকে কীভাবে বাঁধটি রক্ষা করা যায়, তার ব্যবস্থা নিচ্ছি। পরেসেচ দপ্তর এটা নিয়ে ভাববে।

তবে নদীবাঁধে এত বড় ধস দেখা দেওয়ায় আতঙ্কিত স্থানীয় বাসিন্দারা। ভাদ্র মাসে আবারও ষাঁড়াষাঁড়ির কোটাল রয়েছে। তার আগেই যদি এই বাঁধ মেরামতি না করা হয়, তাহলে নোনা জল ঢুকে গোটা গ্রাম প্লাবিত হতে পারে।

Related Articles

Back to top button
error: Content is protected !!