28 Jul 2021, 12:53 PM (GMT)

Coronavirus Stats

31,484,605 Total Cases
422,054 Death Cases
30,663,147 Recovered Cases
খবররাজ্য

স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের সূচনা করলেন মুখ্যমন্ত্রী, দ্বাদশে ট্যাবের টাকা শীঘ্রই

স্টাফ রিপোর্টারঃ ভোটের আগেই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কথা রাখলেন মুখ্যমন্ত্রী। চালু হল স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড প্রকল্প। দশম শ্রেণি উত্তীর্ণ প্রত্যেক ছাত্রছাত্রীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন এই কার্ডের জন্য।  বুধবার নবান্ন থেকে এই প্রকল্পের সূচনা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বলেন, “আমরা কথা রাখি।

আগেই সবুজসাথী, কন্যাশ্রী, ঐকশ্রী -সহ একাধিক প্রকল্প চালু হয়েছে। ভোটের আগে পড়ুয়াদের জন্য যে ক্রেডিট কার্ডের প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল, তা চালু করা হল। টাকার অভাবে আর কারও লেখাপড়া বন্ধ হবে না।” মুখ্যমন্ত্রী নিজেই জানিয়েছেন কোন কোন ক্ষেত্রে ব্যবহার করা যাবে এই কার্ড।

জানা গিয়েছে,  দশম থেকে শুরু করে স্নাতক, স্নাতকোত্তর, ডিপ্লোমা, গবেষণা, ডাক্তারি পড়ার ক্ষেত্রে বিশেষ এই কার্ডের মাধ্যমে লোন পাওয়া যাবে। শুধু তাই নয়, প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষার প্রস্তুতি নিচ্ছেন যাঁরা, সেক্ষত্রে কোচিংয়ের ফি-ও মেটানো যাবে এই ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে। এছাড়া লেখাপড়ার যাবতীয় খরচ, কোর্স ফি, হস্টেল ফি, বই কেনা যাবে।

কম্পিউটার ও ল্যাপটপ কেনার ক্ষেত্রেও এই কার্ডের মাধ্যমে মিলবে ঋণ। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, শুধু  রাজ্য বা দেশে নয়, বিদেশে পড়াশোনার ক্ষেত্রেও এই কার্ড থেকে মিলবে ঋণ। ৪০ বছর বয়স পর্যন্ত এই স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের  সুবিধা পাওয়া যাবে।  ঋণের মেয়াদ ১৫ বছর। মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, দশম শ্রেণি উত্তীর্ণ পড়ুয়ারা অনলাইনে এই কার্ডের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

সরকারি-বেসরকারি সমস্ত ব্যাংক থেকেই মিলবে অর্থ। এদিন মুখ্যমন্ত্রী আরও জানিয়েছেন, সবুজ সাথী প্রকল্পে ইতিমধ্যেই ১ কোটি পড়ুয়া সাইকেল পেয়েছে।  ভোটের জন্য কিছু দিন কাজ বন্ধ ছিল, তবে তা আবার শুরু হয়েছে। চলতি বছরের নভেম্বরের মধ্যে আরও ১২ লক্ষ সাইকেল দেওয়া হবে।

তাঁদের মধ্যে ২০১৯ সালের নবম শ্রেণির ৩ লক্ষ পড়ুয়া ও ২০২০ সালের ৯ লক্ষ পড়ুয়া রয়েছে। এছাড়া তরুণের স্বপ্ন প্রকল্পে এবছরে দ্বাদশ শ্রেণির সাড়ে আট লক্ষের বেশি পড়ুয়া ট্যাবের টাকা পেয়েছে। এবার যাঁরা দ্বাদশ শ্রেণিতে উঠবে, নিয়ম অনুযায়ী তারা পাবেন ট্যাবের ১০ হাজার টাকা।

Related Articles

Back to top button