26 Jul 2021, 7:23 AM (GMT)

Coronavirus Stats

31,439,764 Total Cases
421,411 Death Cases
30,613,047 Recovered Cases
খবরদুনিয়া

সেনা প্রত্যাহারের পরেও মিলবে সাহায্য, আফগানিস্তানকে আশ্বাস বাইডেনের

সংবাদ সংস্থা : আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনি এবং আবদুল্লাহ আবদুল্লাহর সঙ্গে হোয়াইট হাউসে বৈঠক করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। সেখানেই আফগান নেতাদের বাইডেন আশ্বাস দেন যে সেনা প্রত্যাহারের পরও মার্কিন সাহায্যের হাত সবসময় আফগানিস্তানের দিকে বাড়ানো থাকবে।

তবে এর পাশাপাশি জো বাইডেন জানান, এরপর থেকে আফগানিস্তানের ভবিষ্যত্ এখন তাদের হাতেই থাকবে। উল্লেখ্য, গত প্রায় দুই দশক ধরে আফগানিস্তানে ঘাঁটি গেড়ে বসেছিল মার্কিন নেতৃত্বাধীন বহুজাতিক সেনা।এদিকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের পাশাপাশি আফগানিস্তানের তালিবান গোষ্ঠীও ফের একবার নিজেদের জমি পোক্ত করতে শুরু করেছে।

এই আবহে এক মার্কিন গোয়েন্দা রিপোর্টে দাবি করা হয় যে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের ৬ মাসের মধ্যে কাবুলের পতন হবে। এই পরিস্থিতিতে তালিবানদের সঙ্গে শান্তি চুক্তি অনুযায়ী আমেরিকা পুরোপুরি সেনা প্রত্যাহার করছে সেদেশ থেকে। যদিও কাবুলের অনেক রাজনীতিবিদ আফগানিস্তান থেকে পুরোপুরি মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের সিদ্ধান্তে আপত্তির কথা জানিয়েছেন এদিনও।

এই পরিস্থিতিতে ওয়াশিংটন সূত্রে খবর, আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সামরিক বাহিনীর উপস্থিতি সরিয়ে নেওয়া হলেও দেশটিতে কূটনীতিকদের নিরাপত্তায় কমবেশি ৬৫০ জন সেনা থেকে যেতে পারেন।এই পরিস্থিতিতে বৈঠকে বসেন বাইডেন-গনি। বাইডেন সেই বৈঠকে জানান, সেনা প্রত্যাহার করে নেওয়া হলেও কাবুলের প্রতি সমর্থন বজায় থাকবে ওয়াশিংটনের।

যুক্তরাষ্ট্র নিরাপত্তা–সংক্রান্ত সাহায্য দেবে আফগানিস্তানকে। পাশাপাশি বাইডেনের বক্তব্য, এখন থেকে আফগানদের হাতে রয়েছে তাদের ভবিষ্যৎ নির্ধারণের চাবিকাঠি।

এর প্রেক্ষিতে গনি বলেন, ‘আফগানিস্তান থেকে সেনা প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত যুক্তরাষ্ট্রের নিজস্ব। তবে আমরা ঐক্য ও সংহতি প্রতিষ্ঠার ব্যাপারে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ।’ পাশাপাশি গনি দাবি করেন, আফগানিস্তান–যুক্তরাষ্ট্রের নতুন অধ্যায় শুরু হয়েছে।

Related Articles

Back to top button