19 Jun 2021, 6:38 AM (GMT)

Coronavirus Stats

29,853,870 Total Cases
385,815 Death Cases
28,725,030 Recovered Cases
খবরজেলা

করোনায় মৃত্যু বাড়ছে, শ্মশান ও কবরস্থানের জায়গা চিহ্নিতকরণের নির্দেশ পূর্ব মেদিনীপুরে

নিজস্ব সংবাদদাতা, পূর্ব মেদিনীপুর: লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা সংক্রমণের সংখ্যা। পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। করোনায় মৃতদেহ দাহ বা মাটি দেওয়ার জন্য এবার শ্মশান ও কবরস্থানের জায়গা নির্দিষ্ট করার পদক্ষেপ নেওয়া হল।

জেলাশাসক বলেন, প্রশাসনের পক্ষ থেকে বিভিন্ন ব্লক আধিকারিককে ওই জায়গা চিহ্নিতকরণের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।হলদিয়া ভবনে জেলার স্বাস্থ্য আধিকারিকদের নিয়ে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের শ্রম দপ্তরের প্রিন্সিপাল সেক্রেটারি বরুণ রায় এবং জেলা প্রশাসনের স্বাস্থ্য আধিকারিকবৃন্দ।

সভা শেষে জেলাশাসক জানান, করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়ায় এখনও পর্যন্ত জেলায় মৃতের সংখ্যা প্রায় ১৭। তার মধ্যে চণ্ডীপুর করোনা হাসপাতালে মারা গিয়েছে এখনও পর্যন্ত ১৩ জন। বিপদ বুঝে আগে থেকেই সচেতন হতে চাইছে জেলা প্রশাসন। হু হু করে বাড়ছে মৃতের সংখ্যা।

জেলায় আক্রান্তের সংখ্যা ৩০০ পেরিয়েছে। জেলা প্রশাসনের তরফে ২৫ জন বিডিওকে নিজেদের এলাকায় করোনায় মৃতদের জন্য শ্মশান এবং কবরস্থান করার জায়গা চিহ্নিত করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বেশকিছু ব্লকের বিডিও এবং ভূমি সংস্কার আধিকারিক যৌথভাবে জমি চিহ্নিত করার কাজ শুরু করে দিয়েছেন।

তবে জমি খুঁজতে গিয়ে হিমশিম খেতে হচ্ছে তাঁদের। প্রশাসন সূত্রে আরও খবর, এ পর্যন্ত চণ্ডীপুর হাসপাতালে যেসব রোগী মারা গিয়েছেন, তাঁদের বেশিরভাগকেই দীঘা বৈদ্যুতিক চুল্লিতে দাহ করা হয়েছে। গতবছরও জেলায় কোভিডে মৃতদের সিংহভাগকেই দীঘা ও হলদিয়ায় দাহ করা হয়েছে।

হলদিয়া ব্লক উন্নয়ন আধিকারিক বলেন, এলাকার একটি জমি চিহ্নিত করা হয়েছে শ্মশান, কবরস্থান করার জন্য। স্থানীয় পঞ্চায়েতের সঙ্গে কথা বলে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। জেলাশাসক শ্মশান, কবরস্থান চিহ্নিতকরণের কাজ প্রাথমিক স্তরে রয়েছে বলে জানান।

Related Articles

Back to top button