29 Jul 2021, 10:43 AM (GMT)

Coronavirus Stats

31,528,114 Total Cases
422,695 Death Cases
30,701,612 Recovered Cases
খবরদক্ষিণ ২4 পরগণা

আমন ধানের বীজতলা তৈরি করে দুর্গতদের দেওয়ার সিদ্ধান্ত দুর্বাচটিতে

রবীন্দ্রনাথ সামন্ত, পাথরপ্রতিমা: আমন ধানের বীজতলা তৈরি করে বন্যাদুর্গত কৃষকদের বিলিবণ্টন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাথরপ্রতিমার দুর্বাচটি গ্রাম পঞ্চায়েত। দুর্বাচটি গ্রাম পঞ্চায়েত, সোসাইটি ফর দুর্বাচটি সোশ্যাল অ্যাকশন এবং ট্রানসফরমেশনের যৌথ প্রয়াসে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানান পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য দুলাল মণ্ডল।

তিনি বলেন, এ বিষয়ে রবিবার গ্রাম পঞ্চায়েতে সর্ববদলীয় বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান সঞ্চিতা প্রধান, উপপ্রধান গঙ্গেশ মণ্ডল, বিরোধী দলনেতা গৌতম আড়ি, পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য দুলাল মণ্ডল, বিডিওর প্রতিনিধি রণজিত ঘোষ, প্রাক্তন প্রধান সুকদেব বেরা সহ পঞ্চায়েতের অন্যান্য সদস্য এবং বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ।ঘূর্ণিঝড় যশ এবং জলোচ্ছ্বাসে দুর্বাচটি গ্রাম পঞ্চায়েতের পাঁচটি মৌজা নোনা জলে প্লাবিত হয়ে ভীষণভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে দুলালবাবু জানান।

তিনি বলেন, এর ফলে বীজতলা তৈরি করার কোনও জায়গা নেই। তাই গ্রাম পঞ্চায়েত এদিন সকল সদস্যদের এবং বিশিষ্ট ব্যক্তিদের নিয়ে নোনা সহনশীল দেশীয় ধানের বীজতলা তৈরি করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। যেখানে নোনাজল ঢোকেনি, এরূপ ৩০ বিঘা জমিতে বীজতলা ফেলার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এর জন্য গ্রাম পঞ্চায়েতের পাঁচটি পয়েন্টকে বেছে নেওয়া হয়েছে বীজতলা তৈরি করার জন্য। যেসব চাষির বীজতলা তৈরির কোনও জায়গা নেই, তাঁদের প্রত্যেককে এক বিঘা আমন ধান চাষের জন্য বীজধানের চারা দেওয়া হবে গ্রাম পঞ্চায়েতের পক্ষ থেকে। দুলালবাবু জানান, গ্রাম পঞ্চায়েত থেকে দুর্গত কৃষকদের বীজধান দেওয়া হবে এবং পুকুর থেকে নোনা জল সেচার জন্য প্রত্যেককে ডিজেল দেওয়া হবে।

এ প্রসঙ্গে কৃষি ও ধান বীজের সংরক্ষক এবং গবেষক সুধাংশুশেখর দে জানান, দু’হাজার বিঘা জমির জন্য দু’হাজার কৃষককে বীজধানের চারা তৈরি করে দেওয়া হবে। এই প্রক্রিয়া তদারকি করার জন্য পাঁচটি দল গঠন করা হয়েছে। বীজতলা তৈরি থেকে চারা বণ্টন সহ ফসল তোলা পর্যন্ত কৃষকদের পাশে থেকে সহযোগিতা করবে তদারকি কমিটি।

দুর্বাচটি গ্রাম পঞ্চায়েত দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার মধ্যে সর্বপ্রথম এই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে বলে জানান পাথরপ্রতিমা ব্লক সহ কৃষি অধিকর্তা ড. শুভম দে। তিনি গ্রাম পঞ্চায়েতের এই সিদ্ধান্তকে সাধুবাদ জানিয়েছেন এবং সব রকমের সহযোগিতার আশ্বাসও দিয়েছেন।

Related Articles

Back to top button